৭৭৩ দিনে ৯ হাজার ১৪ টা মিথ্যে বলেছেন ট্রাম্প: ওয়াশিংটন পোস্ট

আমেরিকা

(ওয়াশিংটন, যুক্তরাষ্ট্র) ক্ষমতা গ্রহণের পর ৭৭৩ দিনে ৯ হাজার ১৪ টা মিথ্যা বলেছেন বা বিভ্রান্তিকর দাবি করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। গত দু্ বছরে প্রতি দিন অন্তত ১৫ টা করে মিথ্যা বলেছেন তিনি। কিন্তু শনিবার (২ মার্চ) রিপাবলিকান নির্বাচনী প্রচারণা গোষ্ঠীর এক সম্মেলন কনজারভেটিভ পলিটিক্যাল অ্যাকশন কনফারেন্সে মিথ্যার সব রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছেন তিনি। এদিন ১০০-এর বেশি বিভ্রান্তিকর তথ্য দিয়েছেন তিনি। এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিযেছে মার্কিন সংবাদমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্ট।

ওয়াশিংটন পোস্ট জানায়, ২০১৭ সালে ট্রাম্পের প্রতিদিন বলা মিথ্যা কথার পরিমাণ ছিলো গড়ে ৫.৯টি। কিন্তু নাটকীয়ভাবে ২০১৮ সালে এ সংখ্যা প্রায় তিনগুণ বেড়ে প্রতিদিন গড়ে ১৬.৫টিতে দাঁড়ায়। আর সার্বিকভাবে দুই বছরে তার বলা ৯ হাজার ১৪টি মিথ্যার গড় হিসেব করলে দাড়ায় প্রতিদিন ১১.১৭টি। ওয়াশিংটন পোস্টের ফ্যাক্টচেকার কলামের সম্পাদক গ্লেন কেসলার বলেন, ‘এ কাজ করতে আমাদের অনেক সময় ব্যয় করতে হয়েছে। কারণ তিনি মিথ্যা বলেই যাচ্ছেন।’

ট্রাম্প সবচেয়ে বেশিবার মিথ্যা বলেছেন মার্কিন নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপের তদন্ত নিয়ে। মোট ১৮৭ বার তিনি বলেছেন নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপ নিয়ে তদন্ত তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র। প্রতিদিন গড়ে ১৬টি মিথ্যা বলেছেন ট্রাম্প। ট্রাম্প দ্বিতীয় সর্বোচ্চ মিথ্যাটি বলেছেন ১২৫ বার। এটি হল—মার্কিন ইতিহাসে তিনিই সবচেয়ে বেশি কর ছাড় দিয়েছেন।

ট্রাম্প প্রথম একশো দিনে কতটি মিথ্যা বলেন তা দেখার জন্য প্রকল্পটি হাতে নিয়েছিল ওয়াশিংটন পোস্ট। কিন্তু ট্রাম্প মিথ্যা বলতে থাকায় এবং পাঠকরা চালিয়ে যেতে উৎসাহ দেয়ায় উদ্যোগটি অব্যাহত রাখা হয়। ট্রাম্প যতদিন ক্ষমতায় থাকবেন তার পুরোটা সময়জুড়ে তার মিথ্যা বলার হিসাব রাখা বলে বলে ঘোষণা দিয়েছেন ওয়াশিংটন পোস্ট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *