রাশিয়া

২০৫০ সালের মধ্যে মুসলমান সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ হবে রাশিয়া!

বিশ্বজগৎ লিড নিউজ

মুসলিম জনসংখ্যা বাড়ছে রাশিয়ায়।ইসলাম ধর্মের দিকে ঝুঁকছেন ইউরেশিয়ার বৃহৎ এই দেশটির মানুষেরা।

এ বিষয়ে রাশিয়ার গ্র্যান্ড মুফতি রাভিল জাইনুদ্দিন বলেছেন, ২০৩৪ সালে রাশিয়ায় মোট জনসংখ্যার ৩০ ভাগই হবে মুসলিম।তবে যে হারে মুসলিম সংখ্যা বৃদ্ধি হচ্ছে সেভাবে মসজিদ নির্মাণ হচ্ছেনা রাশিয়ায়।

সেকারণে নামাজ আদায়ে মসজিদের সংকট দেখা দিয়েছে সেখানে। দিন দিন মুসলিম সংখ্যা বাড়াতে এমন পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটির মুসলিম অধিবাসীরা।দ্য মস্কো টাইমস জানিয়েছে, গত সোমবার রাশিয়ার ফেডারেল অ্যাসেম্বলির নিম্নকক্ষে ‘স্টেট ডুমা’ আয়োজিত এক ফোরামে দেশটির অর্থোডক্স চার্চের প্রধান যাজক দিমিত্রি স্মির্নভ এসব তথ্য তুলে ধরেন।

তিনি রাভিল জাইনুদ্দিনের বক্তব্যের সঙ্গে একমত পোষণ করে ওই ফোরামে বলেন, রাশিয়ায় মুসলিম জনগোষ্ঠী বৃদ্ধির হার এভাবে অব্যাহত থাকলে ২০৫০ সালে মুসলিমরাই হবে রাশিয়ার সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগোষ্ঠী।নামাজ আদায়ে আরও অনেক মসজিদ নির্মাণ করতে হবে জানিয়ে গ্র্যান্ড মুফতি রাভিল জাইনুদ্দিন বলেন, ২০১৮ সালে রাশিয়ার মসজিদগুলোতে প্রায় ৩২ লাখ মুসলিম অংশগ্রহণ করেছে। এ সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

২০১৮ সালের হিসাব অনুযায়ী রাশিয়ায় মুসলিম জনগোষ্ঠীর সংখ্যা প্রায় ২০ কোটি, যা রাশিয়ার মোট জনসংখ্যার ১৫ শতাংশ। রাশিয়ার মোট জনসংখ্যা ছিল ১৪৬.৮ মিলিয়ন।রাশিয়ায় নর্থ কাউকাসুস ও তাতারাস্তান অঞ্চল দুটি দেশটির মুসলিম প্রধান অঞ্চল হিসেবে পরিচিত। আর এই দুই প্রজাতন্ত্রে উচ্চহারে মুসলিম জনসংখ্যা বাড়ছে বলে জানিয়েছে রাশিয়ার জনপরিসংখ্যান রিপোর্ট।

এছাড়াও রাশিয়ার রাজধানী মস্কোসহ সেন্ট পিটার্সবার্গ এবং ইয়েকাতেরিনবার্গ মুসলিমদের আধিক্য রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *