ইবরাহিমি মসজিদে ছয় মাসে ৩০০ বার আজানে বাধা ইসরাইলের

মধ্যপ্রাচ্য

তেলআবিব, ইসরাইল- যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশ ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে অবস্থিত মসজিদ আল ইবরাহিমি বা ইবরাহিমি মসজিদ। নানা ঘটনা আর মুসলিম নিদর্শন বহন করছে ঐতিহাসিক এই মসজিদটি। কিন্তু প্রতি বছরের বিভিন্ন সময় মসজিদটিতে আজান দেয়া ও নামাজ পড়া বন্ধ করে দেয় ইসরাইলি সেনাবাহিনী। এভাবে গত ছয় মাসেই ২৯৪ বার আজানে বাধা সৃষ্টি করেছে তারা। খবর মিডিল ইস্ট মনিটরের।

ফিলিস্তিনি ওয়াক্ফ মন্ত্রণালয়ের এক তথ্য বিবরণী থেকে জানা যায় যে, জানুয়ারি ২০১৯ থেকে জুন পর্যন্ত গত ৬ মাসে মসজিদটিতে ২৯৪ বার আজানে বাধা দেওয়া হয়েছে। গত এপ্রিলেও একাধারে কয়েকটি নামাজও বন্ধ রাখা হয়েছিল।

ইসরাইলি কর্তৃপক্ষ তাদের সেনাবাহিনী দ্বারা হজরত ইবরাহিম (আ.) এর স্মৃতি বিজড়িত এ পবিত্র মসজিদটিতে আজান ও নামাজ পড়ায় প্রতিনিয়ত বাধা দিয়ে থাকে। তাদের যে কোনো অনুষ্ঠানের সময় মসজিদে আজান দেওয়া তো দূরের কথা, নামাজই বন্ধ করে দেয়া হয়।

দখলদার ইসরাইলি সেনাবাহিনী ও ইয়াহুদিরা তাদের বিভিন্ন উৎসব উপলক্ষে টানা কয়েক দিন পর্যন্ত এ মসজিদ আজান ও নামাজ বন্ধ করে দেয়। ইবরাহিমি মসজিদটি ‘দুই সমাধির গুহা’ তথা কেভ অব দ্য পেট্রিয়ার্ক‌ বা আল-হারাম আল-ইবরাহিমি নামেও পরিচিত। এটি ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে পুরাতন হেবরন (আল-খলিল) শহরের মধ্যস্থলে হেবরন পাহাড়ে অবস্থিত।

উইকিপিডিয়ার তথ্য মতে, ‘তাওরাত ও কুরআনের সঙ্গে সম্পর্কিত লোককথা অনুযায়ী হজরত ইবরাহিম (আ.) ‘ইবরাহিমি মসজিদ’-এর স্থান ও পার্শ্ববর্তী পাহাড় ও জমি তার দাফনের জন্য ক্রয় করেছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *