চীনে উইঘুর মুসলিমদের সমস্যা সমাধান সম্ভব: এরদোগান

চীন

বেইজিং, চীন- তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান বলেছেন, চীনের শিনজিয়াংয়ের উইঘুর মুসলিমদের সমস্যা সমাধান সম্ভব। দেশটির বন্দিশিবিরে থাকা হাজার হাজার উইঘুর মুসলিমকে সাহায্য করতে উভয়ের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে সমাধান খুঁজে বের করা যেতে পারে। বৃহস্পতিবার বেইজিংয়ে চীনা প্রেসিডেন্ট শিং জিনপিংয়ের সঙ্গে বৈঠকের পর এ কথা বলেন প্রেসিডেন্ট এরদোগান।

শিনজিয়াং প্রদেশে ১০ লাখ জাতিগত মুসলিম উইঘুরকে বন্দিশিবিরে আটক রাখায় চীনের সমালোচনা করেছে একমাত্র তুরস্কই। বেইজিং থেকে ফেরার আগে এরদোগান সাংবাদিকদের বলেন, আমরা বিশ্বাস করি স্পর্শকাতর উভয় দিক থেকে আলোচনার মাধ্যমে এ ইস্যু নিয়ে সমাধান বের করতে পারি।

এদিকে চীনা রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম দাবি করছে, এরদোগান বলেছেন- সংখ্যালঘু জাতিগোষ্ঠী জিনজিয়াংয়ে সুখে বসবাস করছে। কিন্তু তিনি তুর্কি সাংবাদিকদের কাছে এমন কোনো মন্তব্য করেননি। তিনি জিনজিয়াং ইস্যু নিয়ে সতর্ক করে বলেন, বিনিয়োগকারী এবং ব্যবসায়িক অংশীদার চীনের সঙ্গে এ বিষয়টি উত্তেজনা সৃষ্টি করছে।

তুরস্ক ও চীনের সম্পর্কের মধ্যে নির্যাতনের (উইঘুর) বিষয়টি নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে। আমাদের প্রয়োজন নির্যাতনের কোনো সুযোগ না দেয়া। তুরস্ক পশ্চিম তুর্কিস্তানের প্রতিনিধি পাঠাতে পারে, যারা সামাজিক কর্মী এবং বেইজিং তাদের পরামর্শ দিতে পারে। কারিগরি শিক্ষার নামে আটক উইঘুরদের ব্যাপারে কোনো ব্যাখ্যা দিতে অস্বীকার করছে চীন। সূত্র: দ্য নিউ আরব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *