ভারতের প্রথম ‘চিফ অব ডিফেন্স স্টাফ’ হলেন বিপিন রাওয়াত

ভারত

(নয়াদিল্লি, ভারত) ভারতের প্রথম প্রতিরক্ষা প্রধান (চিফ অব ডিফেন্স স্টাফ) হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন সদ্য সাবেক সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত।  সেনাপ্রধানের পদ থেকে অবসরের একদিন আগে সোমবার (৩০ ডিসেম্বর) তাকে এ পদে নিয়োগ দেয়া হয়। বর্তমান সেনাপ্রধানকে প্রতিরক্ষা প্রধান হিসেবে নিয়োগ দিয়েছে দেশটির ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার। এর আগে গত ২৪ ডিসেম্বর তিন সশস্ত্র বাহিনীর কাজে সমন্বয়ের লক্ষ্যে এই পদ সৃষ্টির ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তখন থেকেই জল্পনা ছিল সেনাপ্রধান বিপিন রাওয়াতই দেশটির প্রথম প্রতিরক্ষা প্রধান নিয়োগ পেতে যাচ্ছেন।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বিপিন রাওয়াত এই পদে থাকাকালীন নিরাপত্তা সংক্রান্ত বিষয়ে সরাসরি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারবেন। সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী ও বিমান বাহিনীর প্রধানরা তাকে কাজের ব্যাপারে রিপোর্ট করবেন। ইতোমধ্যেই চিফ অফ স্টাফ কমিটির চেয়ারম্যান পদে কাজ করেছেন তিনি। নতুন পদে নিয়োগ পাওয়ায় স্বশস্ত্র বাহিনীর সম্প্রসারণ, প্রশিক্ষণ ও অস্ত্র সম্পর্কিত নানা বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন তিনি। 

১৯৯৯ কার্গিল যুদ্ধের পরেই বাহিনীর দেখাশোনার জন্য প্রতিরক্ষাবাহিনীর প্রধান পদে নিয়োগের সুপারিশ করা হয়। সেবার ভারতে ঢুকে পড়েছিল পাকিস্তানি সেনারা, তারপরেই নিরাপত্তার ঘাটতি চিহ্নিত করতে একটি কমিটি গঠন করা হয় এবং কার্গিলের গুরুত্বপূর্ণ জায়গাগুলো চিহ্নিত করতে বলা হয়।

ওই সুপারিশের পর এবারের স্বাধীনতা দিবসের ভাষণে প্রতিরক্ষাবাহিনীর প্রধান পদের ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তার পর থেকেই প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের তৎপরতা শুরু হয়। অবশেষে ২৪ ডিসেম্বর এই পদাধিকারীর দায়িত্ব-কর্তব্য নিয়ে বিজ্ঞপ্তি জারি হয়। এতে বলা হয়েছিল, সেনার যে কোনও বাহিনীর ‘ফোর স্টার’ ক্যাটাগরির অফিসারকে নিয়োগ করা হবে। এরপরই জেনারেল বিপিন রাওয়াতকে নিয়োগ দেওয়া হল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *