কোয়ারেন্টিনে থাকতে বলায় ইউক্রেনে পর্যটকদের বিমানবন্দর ভাংচুর

ইউরোপ লিড নিউজ

কিয়েভ, ইউক্রেন- ইউক্রেনে করোনা ঠেকাতে কোয়ারেন্টিন করার সরকারি নির্দেশ প্রত্যাখ্যান করেছে দেশটির কয়েকশ পর্যটক। উল্টো রাজধানী কিয়েভের কিয়েভ বিমানবন্দর ভাংচুর করেছে তারা। ভিয়েতনামে আটকে এসব পর্যটককে মঙ্গলবার বিশেষ বিমানে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়। বিমানবন্দরের কাছেই সরকারের প্রস্তুত করা কোয়ারেন্টিন সেন্টারে তাদের থাকার নির্দেশ দেয়া হয়।

আলবাওয়াবা জানিয়েছে, ভাইরাসের মহামারীর মধ্যে ভিয়েতনামের হোচিমিন সিটিতে আটকেপড়া ২৩৮ জন ইউক্রেনীয় পর্যটককে ফিরিয়ে আনা হয়। মঙ্গলবার সকালেই তারা কিয়েভ বিমানবন্দরে এসে পৌছায়। অবতরণের পরপরই তাদেরকে সরকারি কোয়ারেন্টিন সেন্টারে নেয়ার চেষ্টা করেন বিমানবন্দরে অপেক্ষমান স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা। এ সময় তাদের সঙ্গে পর্যটকদের বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে বিমানবন্দর ভাংচুর চালায় তারা। এ ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

ইউক্রেনে ইতোমধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা। ইউক্রেন অবশ্য ইতালি বা স্পেনের মতো ভয়ংকর রূপ এখনও নেয়নি। তবে এখন পর্যন্ত ১০ জনকে হারিয়েছে দেশটি। চেরনোবিল দুর্ঘটনার কথা ভেবে এখনো মানুষ আঁতকে ওঠেন। ১৯৮৬ সালের সে দুর্ঘটনা সরাসরি ৫৪টি প্রাণ কেড়ে নিয়েছিল। আর এ দুর্ঘটনার ফলে সৃষ্ট পারমাণবিক তেজস্ক্রিয়ার ফলে পরবর্তীতে প্রাণ হারিয়েছেন আরও হাজারো মানুষ। বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসের প্রকোপ দেখে সেই ভয়াবহ দিনগুলোর কথা মনে পড়ছে কারও কারও।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *