পুলিশ সংস্কার বিল পাসে আহ্বান ফ্লয়েডের ভাইয়ের

পুলিশ সংস্কার বিল পাসের আহ্বান ফ্লয়েডের ভাইয়ের

আমেরিকা লিড নিউজ

ওয়াশিংটন, যুক্তরাষ্ট্র- পুলিশ সংস্কার বিল পাস করতে যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন পুলিশি হেফাজতে নিহত জর্জ ফ্লয়েডের ভাই ফিলোনিস ফ্লয়েড। ভাইয়ের হত্যাকাণ্ড নিয়ে মার্কিন কংগ্রেসে স্বাক্ষ্য দিতে গিয়ে বুধবার পুলিশ সংস্কার প্রস্তাব অনুমোদন করতে মার্কিন আইনপ্রণেতাদের প্রতি এই আহ্বান জানান তিনি। ওয়াশিংটন পোস্ট, নিউইয়র্ক টাইমস, সিএনএন ও রয়টার্স।

জর্জ ফ্লয়েডের হত্যাকাণ্ডের প্রেক্ষিতে পুলিশি বর্বরতা ও বর্ণবাদের বিরুদ্ধে টানা বিক্ষোভের জেরে ‘জাস্টিস ইন পুলিশিং অ্যাক্ট ২০২০’ নামে পুলিশ সংস্কার বিল কংগ্রেসে উত্থাপন করেছে ডেমোক্র্যাট নেতারা। বিলটি আইনে পরিণত হলে অসদাচরণ, গলা চেপে ধরার কারণে পুলিশ সদস্যদের বিচার করা এবং বর্ণবাদ মোকাবিলা সহজ হবে। তবে এই বিলটিতে সিনেট নিয়ন্ত্রণ করা রিপাবলিকানরা সমর্থন দেবেন কিনা তা স্পষ্ট নয়।

জর্জ ফ্লয়েডের শেষকৃত্যের এক দিন পর নাগরিক অধিকার কর্মী ও আইনশৃঙ্খলাবাহিনীর কর্মকর্তাদের স্বাক্ষ্য গ্রহণ শুরু করেছেনকংগ্রেসের জুডিশিয়ারি কমিটির আইনপ্রণেতারা।  ভাইকে সমাহিত করে আসা ফিলোনিস আবেগাপ্লুত হয়ে ভিডিওতে হত্যার সেই মর্মান্তিক দৃশ্যের বর্ণনা দেন।

এরপরই পুলিশের বর্বরতার বিরুদ্ধে আইনপ্রণেতাদেরকে ব্যবস্থা নিতে তৎপর হওয়ার দাবি জানান তিনি। ফিলোনিস বলেন, তার ভাই জর্জ যেন নিহত কৃষ্ণাঙ্গদের তালিকায় কেবল আরেকটি নাম না হয়।

দেশ এবং পৃথিবীর চাওয়া অনুযায়ী কাঙ্খিত নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য কংগ্রেসকে আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘জর্জের আর্তনাদ কেউ শোনেনি। আমি আপনাদের কাছে যে আর্জি জানাচ্ছি সেটি শুনুন। আমার পরিবারের আর্জি শুনুন। বিশ্বজুড়ে রাস্তায় রাস্তায় যে আহ্বান ধ্বনিত হচ্ছে তা শুনুন।’

অশ্রুসিক্ত চোখে ফিলোনিস বলেন, ‘আপনাদের কাছে আমি এই যন্ত্রণা বন্ধের আহ্বান জানাচ্ছি। এই বেদনার অবসান করুন। বাঁচার জন্য আর্তনাদ করতে করতে চোখের সামনে ভাইকে মরতে দেখার বেদনা যে কতটা তা আমি আপনাদেরকে বলে বোঝাতে পারব না।’

মিনেসোটার মিনেপোলিসে গত ২৫ মে আফ্রিকান-আমেরিকান জর্জ ফ্লয়েড তার ঘাড়ে শ্বেতাঙ্গ এক পুলিশ কর্মকর্তার হাটুর চাপে দমবন্ধ হয়ে মারা যান। মৃত্যুর ভিডিও স্যোশাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ার পরই যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বব্যাপী বর্ণবাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ-বিক্ষোভের ঝড় ওঠে।

এ পরিস্থিতিতে পুলিশের বর্বরতা, অসদাচরণ রুখে দেয়া, ঘাড়ে চাপপ্রয়োগ নিষিদ্ধ করাসহ নাগরিক অধিকার ভঙ্গের ক্ষেত্রে জবাবদিহিতা ও বিচারের পথ সুগম গত সোমবার মার্কিন কংগ্রেসের ডেমোক্র্যাটরা পুলিশে আমূল সংস্কার আইনের প্রস্তাব পেশ করে।

এর দুই দিনের মাথায়ই বিষয়টি নিয়ে শুনানিতে নাগরিক অধিকার কর্মী এবং আইন প্রয়োগকারী কর্মকর্তাদের সাক্ষ্য শুনতে শুরু করেছে হাউজের বিচারবিভাগীয় কমিটি। ৪ জুলাইয়ে প্রস্তাবিত বিলটি হাউসে পাঠাতে চায় কমিটি।

আরও পড়ুন:

[বিশ্বে পুলিশি নির্যাতন যুক্তরাষ্ট্রেই সবচেয়ে বেশি]

[পুলিশ সংস্কার বিল উঠল মার্কিন কংগ্রেসে]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *